মানুষের হিসাব নিকাশের সময় নিকটবর্তী অথচ তারা বেখবর হয়ে মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছে


“মানুষের হিসাব নিকাশের সময় নিকটবর্তী অথচ তারা বেখবর হয়ে মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছে।” (সুরা আম্বিয়া, ২১ : ১)

সুতরাং যখন নির্ধারিত সময় আসবে এবং জগৎসমূহের স্রষ্টার সম্মুখে মানুষের দাঁড়ানোর সময় নিকটবর্তী হবে:

“শিংগায় ফুৎকার দেয়া হবে — একটিমাত্র ফুৎকার এবং পৃথিবী ও পর্বতমালা উত্তোলিত হবে ও চূর্ণ বিচূর্ণ করে দেয়া হবে।” (সুরা হাক্কাহ, ৬৯ : ১৩-১৪)

তখন যা অবশ্যম্ভাবী তা ঘটবে এবং বিচার দিবস নিকটে আনা হবে এবং প্রকৃত সত্যকে প্রকাশ করা হবে এবং চূড়ান্ত ঘন্টার আগমন ধ্বনিত হবে:

“এটা তো হবে কেবল এক মহা মহানাদ। সে মুহূর্তেই তাদের সবাইকে আমার সামনে উপস্থিত করা হবে।”(সুরা ইয়াসীন, ৩৬ : ৫৩)

এবং তারা

Continue reading

কিয়ামতের আলামত-পর্বঃ১


কিয়ামত কখন হবে?

কিয়ামত কখন হবে তা আল্লাহ ছাড়া কেউ জানেনা। এ বিষয়টি নিয়ে লোকেরা মহানবী(সাল্লাল্লাহু আলাইহুয়া সাল্লাম) কে কিয়ামতের সময় সম্পর্কে প্রশ্ন করত। তিনি তাদের সংবাদ দিতেন যে আল্লাহ(সুবহানাহু ওয়া তা’আলা) ব্যতিত কেউ কিয়ামতের নির্দিষ্ট সময় সম্পর্কে অবগত নয়।আল্লাহ(সুবহানাহু ওয়া তা’আলা)বলেনঃ

“তারা তোমাকে জিজ্ঞাসা করে কিয়ামত কখন ঘটবে।বল,এ বিষয়ের জ্ঞান শুধু আমার প্রতিপালকেরই আছে। শুধু তিনিই যথাকালে উহা প্রকাশ করবেন;উহা আকাশমণ্ডলী ও পৃথিবীতে একটি ভয়ংকর ঘটনা হবে। হঠাথ উহা তোমাদের উপর আসবে।তুমি এ বিষয়ে সবিশেষ অবহিত মনে করে তারা তোমাকে প্রশ্ন করে। বল এ বিষয়ে জ্ঞান শুধু আল্লাহরই আছে, কিন্তু অধিকাংশ লোক জানেনা।”  (সুরা আ’রাফঃ১৮৭)

নবী(সাল্লাল্লাহু আলাইহুয়া সাল্লাম)কে জিবরাঈল(আঃ)যখন প্রশ্ন করলেনঃ কিয়ামত কখন হবে? তিনি উত্তর দিলেন “এ ব্যাপারে যাকে প্রশ্ন করা হয়েছে শে প্রশ্নকারী অপেক্ষা বেশী অবগত নয়।”(সহিহ বুখারী,অধ্যায়ঃকিতাবুল ঈমান)

Continue reading